বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮ ০৭:৪৮:০৭ অপরাহ্ন
শিরোনাম:
বুধবার, ২১ অক্টোবর, ২০১৫, ১২:২১:৪৬
Zoom In Zoom Out No icon

যারা ৩৬তম বিসিএস প্রিলি দিবেন তাদের জন্য

যারা ৩৬তম বিসিএস প্রিলি দিবেন তাদের জন্য

শুভ বাবু

যারা ৩৬ প্রিলি দিবেন তাদের জন্য , যারা ৩৭ , ৩৮ দিবেন আপনারা দেখলেও আশা করি লস হবে না লাভ না হলেও।

খুব সম্ভবত এক মাস সময় হাতে আছে ৩৬তম বিসিএস প্রিলির জন্য। এই এক মাস যদি কেও সঠিকভাবে কাজে লাগাতে পারেন এবং আপনার ভাগ্য যদি আপনার সাথে বেঈমানি না করে আশা করি ৩৬ প্রিলি খুব সহজেই পাশ করে যাবেন।

আগে থেকে বলে নেয়া ভাল যে বিসিএস নিয়ে লেখার মত খুব যোগ্যতা কিংবা জ্ঞান কোনটাই আমার নেই, কারন লেখাটির শেষে আমি লিখতে পারব না আমি অমুক ক্যাডার তমুক ক্যাডার । তবে আলহামদুলিল্লাহ্‌ আমি ৩৩ এবং ৩৪ দুইবারই নন ক্যাডার ৩৫এ বোধ হয় আরেকটি নন ক্যাডার নামক সান্ত্বনা আমার জন্য অপেক্ষমান।

যদিও বিসিএস ক্যাডার হতে পারি নাই (তাতে কি অইছে?), সকল প্রিলিতে(৩৩,৩৪,৩৫) যেহেতু পাশ করেছি সেহেতু প্রিলি নিয়া আমি কিছু লিখলে হয়তো আপনাদের উপকারে আসতেও পারে। আর যদি মনে হয় উপকারে আসবে না দেন স্কিপ ইট।

এবার আসল কথাই আসা যাক।  কিভাবে এবং কি কি পড়তে হবে? আমি সবগুলা বিষয় নিয়ে আলাদা আলাদাভাবে লিখছি। একটু চোখ ভুলিয়ে নিতে পারেন, বলা যায় না কিন্ত উপকৃত হতেও পারেন।

১।  বাংলা ( সাহিত্য ২০ এবং ব্যাকরণ ১৫)

সাহিত্যর জন্য বাজারের যেকোনো একটা গাইড বই ফলো করা যেতে পারে আরে সাথে লাল নীল দীপাবলি বইটি গপ্পের মত করে পড়লে মনে রাখা সহজ হবে।প্রাচিন, মধ্যযুগ এবং পিএসসির পুরাণো সিলেবাসের কবি-সাহিত্যিকদের বেশি করে জোড় দিলে বেশি কমন পাওয়া যাবে। ব্যাকরণ এর জন্য বাজারের গাইড বই ফলো করা যেতে পারে, শুধু সিলেবাস এর টপিকগুলা পড়লেই হবে।সাথে নবম-দশম শ্রেণীর ব্যাকরণ বইটা হাতের কাছে রাখা যেতে পারে।

২।  ইংরেজি ( গ্রামার ২০ এবং সাহিত্য ১৫)

গ্রামার এর জন্য সিলেবাস এর টপিকগুলা একটা একটা করে পড়তে হবে, এই ক্ষেত্রে যেকোনো ভাল একটা গ্রামার বই ফলো করলে হবে। সাথে প্রাকটিস এর জন্যে বাজারের যেকোনো একটা প্রিলির বই কাজে দিতে পারে।সাহিত্য অংশের জন্য এবিসি টুঁ ইংলিশ লিটারেচার ভাল, অনেক কম কিন্ত শধু গুরুত্বপূর্ণ জিনিশ পাবেন।

৩।  বাংলাদেশ বিষয়াবলী (৩০)

এই বিষয়ে জন্য ভাল করতে হলে নতুন বিশ্ব অথবা ওরাকল অথবা প্রফেসর অথবা MP3 যেকোনো একটা দেখা যেতে পারে।খুব ভাল করতে হলে নতুন বিশ্ব অথবা ওরাকল কাজে লাগবে বেশি।

৪।  আন্তর্জাতিক বিষয়াবলী (২০)

বাংলাদেশ বিষয়াবলীর মত যেকোনো একটা বই ফলো করতে হবে।

৫।  ভূগোল এবং পরিবেশ (১০)

নবম দশম শ্রেণীর ভূগোল বইটা ভাল হবে আর যদি ভূগোল না থাকে তাহলে সিলেবাস দেখে যেকোনো গাইড বই ফলো করা যেতে পারে।

৬। সাধারন বিজ্ঞান (১৫)

নবম দশম শ্রেণীর বিজ্ঞান বই সাথে বাজারের যেকোনো সিরিজের বিসিএস বিজ্ঞান বই।

৭। কম্পিউটার এবং তথ্যপ্রযুক্তি(১৫)

নবম দশম শ্রেণীর কম্পিউটার বই এবং উচ্চ মাধ্যমিক মুজিবুল হক এর আইসিটি বই দুইটা এই ক্ষেত্রে ভাল হবে সাথে বিসিএস এর যেকোনো একটা গাইড বই।

৮। গানিতিক যুক্তি এবং মানসিক দক্ষতা

গানিতিক যুক্তির জন্য ক্লাস এইট এবং নাইন এর গনিত বই। সাথে আরিফুর রহমান এর গনিত শর্টকাট দেখতে পারেন।মানসিক দক্ষতার জন্য কিছু না পড়লেও হবে যদি দক্ষতা ভাল থাকে, তবে ওরাকল মানসিক দক্ষতা বইটা ফলো করা যেতে পারে।

৯।নৈতিকতা এবং মূল্যবোধ (১০)

উচ্চ মাধ্যমিকঁ লেভেল এর Pouroniti বই ভাল হবে অথবা বিসিএস এর গাইড থেকে এই অংশ থেকে পড়লে খারাপ হবে না।

দরকারি বইগুলার নাম আবার গুছিয়ে দিচ্ছি

১। বিসিএস বাংলা বই (যেকোনো সিরিজ)
২। নবম-দশম শ্রেণীর বাংলা ব্যাকরণ
৩। রেন মারটিন এর গ্রামার বই অথবা যেকোনো একটা ভাল গ্রামার বই
৪। যেকোনো সিরিজের একটা ইংরেজি বিসিএস প্রিলির বই (প্রাকটিস এর জন্য)
৫। বাংলাদেশ এবং আন্তর্জাতিক বিষয়ের জন্য নতুন বিশ্ব ( বেশি ভাল কিছু করতে হলে) অথবা ওরাকল বাংলাদেশ এবং আন্তর্জাতিক।একটু কম পড়তে চাইলে MP3
৬। নবম-দশম শ্রেণীর ভূগোল বই
৭। নবম-দশম শ্রেণীর বিজ্ঞান
৮। নবম দশম শ্রেণীর কম্পিউটার বই এবং উচ্চ মাধ্যমিক মুজিবুল হক এর আইসিটি বই
৯। নবম দশম শ্রেণী পর্যন্ত গনিত বই সাথে আরিফুর রহমান এর গনিত শর্টকাট
১০। ওরাকল মানসিক দক্ষতা
১১। উচ্চ মাধ্যমিকঁ লেভেল এর Pouroniti বই
১২। ABC to English Literature

পড়াশোনার প্রক্রিয়াঃ

এইটা সবার পছন্দ হবে না। কারো ভাল লাগলে ফলো করতে পারেন।
যারা ইংরেজি এবং গনিতে দুর্বল তারা প্রতিদিন গনিত এবং ইংরেজি পড়লে লাভবান হবেন। প্রতিদিন একটু একটু করে পড়লে মনে থাকবে। আর অন্য বিষয়গুলা একটা একটা করে শেষ করতে পারেন (আমি এভাবেই পড়ি)।
বাংলাঃ ৮ দিন
বাংলাদেশ বিষয়াবলীঃ ৫ দিন
আন্তর্জাতিক বিষয়াবলীঃ ৫ দিন
ভূগোলঃ ২ দিন
বিজ্ঞানঃ ৪ দিন
কম্পিউটার এবং তথ্য প্রযুক্তিঃ ৪ দিন
তবে যারা বিজ্ঞানের ছাত্র না তাদের উচিত প্রতিদিন একটু একটু করে বিজ্ঞান পড়া।
নৈতিকতাঃ ২ দিন
এভাবে পড়েন অথবা সবকিছুই প্রতিদিন একটু একটু পড়েন এটা যার যার ইচ্ছা। যার জন্য যেভাবে ফলপ্রসূ হয়।

আর হ্যাঁ সবকিছু মনে রাখতে হবে এইরকম মন নিয়ে পড়লে কিছুই পড়া হবে না। সবকিছু দেখে দেখে রিডিং পড়ুন , একটু ভাল করে রিডিং পড়ুন দেখবেন পরীক্ষার হল এ ৪ টা অপশন থেকে একটার দিকে কলম স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলে যাবে।

সাম্প্রতিক জিনিস জানার জন্য কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স দেখতে হবে সাথে পত্রিকা, অবশ্য ভালভাবে পত্রিকা পড়লে কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স লাগে না ।
আর পরীক্ষার ৩-৪ দিন আগে থেকে সবচেয়ে দরকারি বই হল- কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স বিসিএস বিশেষ সংখ্যা। কেউ যদি গনিত, বিজ্ঞান আর ইংরেজিতে ভাল হয় আর যদি কপাল বড় হয় তবে শুধু কারেন্ট অ্যাফেয়ার্স বিসিএস বিশেষ সংখ্যা পড়েও প্রিলি উতরানো সম্ভব।

আমার লেখায় ভুল হলে মাফ করবেন, যেহেতু আমি ক্যাডার হতে পারি নাই ভুল টুল থাকবেই, সবাই প্রিলি পাশ করুন, সবাই ক্যাডার হন সেই কামনায় আমিও যাই পড়তে বসুম।  কারো উপকার হলে দুয়া করবেন আমার জন্য , ভাইরে নন ক্যাডার হবার দুঃখ প্রিলি ফেইল করার চেয়ে অধিকতর মনে হয়।

বিশেষ সতর্কবানীঃ

বিশেষ করে বাংলা সাহিত্য, সাধারন জ্ঞান , ইংরেজি সাহিত্য হল হাবুডুবু খাবার বিষয়। যতই পড়িবেন মনে হবে কিছুই পড়া হল না, কিছুই মনে নাই। হা হা হা আসলে শুধু পড়ে যান, দেখে দেখে রিডিং পড়েন , কি মনে থাকল ওইটা নিয়া ভুলেও ভাবার দরকার নাই। দেখবেন পরিক্ষার হলে সব মনে পড়বে। আবারো কইতাছি বাংলা সাহিত্য, সাধারন জ্ঞান , ইংরেজি সাহিত্য দেখে দেখে শুধু রিডিং পরেন ভালভাবে, জপে জপে পড়া দরকার নেই। যদি জপে জপে পরতে ইচ্ছা করে তবে কবি সাহিত্যিকদের উপন্যাস আর কাব্যগ্রন্থের নাম হালকা পাতলা জপতে পারেন।  গপ্লের মত করে পড়েন, বিশ্বাস করেন পরীক্ষায় সব পারবেন।

ফেসবুক থেকে সংগৃহীত

নেশন নিউজ/ এফএ

এ রকম আর ও খবর



বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি  .  জাতীয়  .  স্বাস্থ্য  .  দেশ  .  লাইফস্টাইল  .  ফিচার  .  বিচিত্র  .  আন্তর্জাতিক  .  রাজনীতি  .  শিক্ষাঙ্গন  .  খেলাধুলা  .  আইন-অপরাধ  .  বিনোদন  .  অর্থনীতি  .  প্রবাস  .  ধর্ম-দর্শন  .  কৃষি  .  রাজধানী  .  শিরোনাম  .  চাকরি
Publisher :
Copyright@2014.Developed by
Back to Top