বুধবার, ১৮ জুলাই ২০১৮ ১২:৪৮:৫৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম:
বিশ্বের সবচেয়ে প্রবীণ প্রধানমন্ত্রী হচ্ছেন মাহাথিরবজ্রপাতে মৃত্যু থেকে রক্ষা পেতে হলে করনীয় কি ?পটুয়াখালীর তরুণের চালকবিহীন গাড়ি আবিষ্কার স্পেনে ছাত্রলীগের নতুন কমিটি ঘোষনাতাবলিগ জামাতের সাদ পন্থী ও তার বিরোধী গ্রুপের সংঘর্ষডিইউজে নির্বাচনে গনি - শহিদ পরিষদের অবিস্মরনীয় জয়কোটা সংস্কার আন্দোলনের বিজয় কেউ ঠেকাতে পারবে না: ডাকসুর সাবেক চারভিপি।সন্তান পেটে রেখেই সেলাই, দুই লাখ টাকা ক্ষতিপূরণ দাবিসকল সরকারি চাকরি থেকে স্বাধীনতাবিরোধীদের সন্তানদের বরখাস্তের দাবিদি স্টুডেন্ড’স ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন ঢাকা মহানগরী উত্তরের বৃত্তি প্রদান অনুষ্ঠান সম্পন্ন।
বৃহস্পতিবার, ১৯ জানুয়ারী, ২০১৭, ০৬:১৫:২৪
Zoom In Zoom Out No icon

বাংলাদেশকে সাতেই রাখল অস্ট্রেলিয়া

বাংলাদেশকে সাতেই রাখল অস্ট্রেলিয়া

ম্যাচটা ছিল অস্ট্রেলিয়া ও পাকিস্তানের মধ্যে। তবু পার্থের ওয়ানডেতে চোখ রাখতে হয়েছে বাংলাদেশকে। এ ম্যাচটি জিতে গেলেই যে বাংলাদেশকে টপকে ওয়ানডে র‍্যাঙ্কিংয়ের সাতে চলে যেত পাকিস্তান। তবে আপাতত সেটি হয়নি, রেটিং পয়েন্টে বাংলাদেশের চেয়ে ১ পয়েন্ট পিছিয়েই থাকল পাকিস্তান। পাকিস্তানকে ৭ উইকেটে হারিয়ে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে জিতে নিল স্টিভ স্মিথের দল।
জয়ের জন্য পাকিস্তানের ফিল্ডিংকে ধন্যবাদ দিতেই পারে অস্ট্রেলিয়া। ২৬৩ তাড়া করতে নেমে ৪৫ রানে দুই উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল তারা। সেটি প্রায় তিন উইকেট হয়েই গিয়েছিল। কিন্তু পিটার হ্যান্ডসকম্বের দেওয়া সহজ ক্যাচটা হাত ফসকে গেল মোহাম্মদ নওয়াজের। আবারও কপাল পুড়ল জুনায়েদ খানের।
‘আবারও’ লিখতে হচ্ছে, কারণ এর ৪ ওভার আগেই হ্যান্ডসকম্বকে শূন্য রানে আউট করেছিলেন জুনায়েদ। স্লিপে ক্যাচ দিয়ে মাঠ থেকে যখন প্রায় বেরিয়ে যাচ্ছেন তখনই ডেকে আনা হলো তাঁকে। জুনায়েদের পা যে পেরিয়ে গেছে বোলিং মার্কের দাগের বাইরে! বেঁচে গেলেন হ্যান্ডসকম্ব। তাতেই নিজের রেকর্ডটা অক্ষুণ্ন থাকল এই মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যানের। টেস্টে এখনো পঞ্চাশ রানের নিচে আউট হননি হ্যান্ডসকম্ব, ওয়ানডেতেও তাই হলো। অবশেষে যখন আউট হলেন ততক্ষণে তাঁর রান ৮২।
তৃতীয় উইকেটে স্মিথ-হ্যান্ডসকম্বের জুটি ১৮৩ রানের। হ্যান্ডসকম্ব শেষ করে আসতে না পারলেও স্মিথ দলের জয় নিশ্চিত করেই ফিরেছেন। অধিনায়কের ১০৪ বলে ১০৮ রানের অপরাজিত ইনিংসেই ৫ ওভার বাকি থাকতেই সিরিজে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া।
এর আগে বাবর আজমের রেকর্ড গড়া এক ইনিংসে নির্ধারিত ৫০ ওভারে ২৬৩ রান করেছিল পাকিস্তান। ৮৪ রানের ইনিংসটির মাঝপথেই বাবর পেরিয়েছেন ওয়ানডে ক্যারিয়ারের এক হাজার রানের মাইলফলক। মাত্র ২১ ইনিংস লাগল তাঁর এ মাইলফলক ছুঁতে। তাঁর আগে ২১ ইনিংসে এক হাজার রান করেছেন আরও চারজন—ভিভ রিচার্ডস, কেভিন পিটারসেন, জোনাথন ট্রট ও কুইন্টন ডি কক। কিন্তু সে ইনিংসও কাজে লাগাতে পারেনি পাকিস্তান। শেষ দশ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে মাত্র ৫০ রান তুলেছে পাকিস্তান। ম্যাচের ভাগ্য আসলে লেখা হয়েছে তখনই।

এ রকম আর ও খবর



বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি  .  জাতীয়  .  স্বাস্থ্য  .  দেশ  .  লাইফস্টাইল  .  ফিচার  .  বিচিত্র  .  আন্তর্জাতিক  .  রাজনীতি  .  শিক্ষাঙ্গন  .  খেলাধুলা  .  আইন-অপরাধ  .  বিনোদন  .  অর্থনীতি  .  প্রবাস  .  ধর্ম-দর্শন  .  কৃষি  .  রাজধানী  .  শিরোনাম  .  চাকরি
Publisher :
Copyright@2014.Developed by
Back to Top